vlxxviet mms desi xnxx

সামান্তরিক কাকে বলে?

0

সামান্তরিক কাকে বলে? | সামন্তরিকের সূত্র

যে চতুর্ভূজের বিপরীত বাহুগুলো সমান ও সমান্তরাল তাকে সামন্তরিক বলে। সামন্তরিকের কোনগুলো সমকোণ হয় না।নিম্নোক্ত আর্টিকেলটিতে আমরা সামান্তরিক কাকে বলে, সামন্তরিকের বৈশিষ্ট্য, সামন্তরিকের পরিসীমার সূত্র, সামন্তরিকের ক্ষেত্রফলের সূত্র।

আরো দেখুনঃ বিজ্ঞান কাকে বলে?

সামান্তরিক কাকে বলে?

একটি চতুর্ভুজের বিপরীত বাহুগুলো সমান্তরাল ও সমান কিন্তু কোণগুলো সমকোণ নয় কিন্তু সমান তাকে সামন্তরিক বলে।

সামন্তরিকের সূত্র

সামন্তরিকের পরিসীমা ও ক্ষেত্রফলের সূত্র উদাহরণস্বরূপ দেখানো হয়েছে।

সামন্তরিকের পরিসীমার সূত্র:

সামন্তরিকের বাহুগুলোর দৈর্ঘ্যের যোগফলকে এর পরিসীমা বলে।

সামন্তরিকের পরিসীমার সূত্রটি হলো – 2(a + b)

একটি সামন্তরিকের একটি বাহুর দৈর্ঘ্য a = 4 সে.মি. ও আরেকটি বাহুর b =5 সে.মি. তাহলে সামন্তবিকটির পরিসীমা কত হবে?

পরিসীমার সূত্র প্রয়োগ করে আমরা পাই, 

পরিসীমা = 2(a+b)

 বা, পরিসীমা = 2(4+5) মান বসিয়ে

বা, পরিসীমা = 2(9)

অতএব, পরিসীমা = 18 সে.মি.

সামন্তরিকের ক্ষেত্রফল ও এর সূত্র:

সামন্তরিকের উচ্চতা ও ভূমির গুণফলকে সামন্তরিকের ক্ষেত্রফল বলে। সামন্তরিকের ক্ষেত্রফলের সূত্র = (ভূমি X উচ্চতা) বর্গ একক।

সামন্তরিকের বৈশিষ্ট্য

  • সামন্তরিকের বিপরীত বাহুগুলো পরস্পর সমান।
  • সামন্তরিকের বিপরীত বাহুগুলো পরস্পর সমান্তরাল।
  • সামন্তরিকের কোণগুলো সমকোণ নয়।
  • সামন্তরিকের কর্ণগুলো সামন্তরিকটিকে চারটি সমান ত্রিভুজে ভাগ করে এবং এর ক্ষেত্রফল ও সমান হয়।
  • সামন্তরিকের বিপরীত কোণগুলো পরস্পর সমান।
  • সামন্তরিকের কোণগুলোর সমষ্টি ৩৬০ বা চার সমকোণ।
  • সামন্তরিকের উচ্চতাকে ভূমিকে দিয়ে গুণ করলে এর ক্ষেত্রফল পাওয়া যায়।
  • সামন্তরিকের দুইটি সন্নিহিত কোণের সমষ্টি ১৮০ বা দুই সমকোণ। • সামন্তরিকের কর্ণগুলো সামন্তরিকের ভিতরেই অবস্থান করে।
  • সামন্তরিকের কোণগুলো স্থূলকোণ এবং সূক্ষ্মকোণ।
  • সামন্তরিকের কোণগুলো প্রবৃদ্ধ কোণ বা সমকোণ নয়।
  • সামন্তরিকের বৃহত্তর কর্ণ সংলগ্ন কোণ দুইটি সূক্ষ্মকোণ।
  • সামন্তরিকের কর্ণগুলো পরস্পর সমান হলে এটি তখন আয়তক্ষেত্র হয়।
  • সামন্তরিকের কর্ণদ্বয় পরস্পরকে সমদ্বিখণ্ডিত করে।

সামন্তরিক সম্পর্কিত কিছু প্রশ্ন –

১। যে চতুর্ভূজের বিপরীত বাহুগুলো পরস্পর সমান্তরাল ও সমান তাকে কি বলে?

(ক) রম্বস।

(খ) আয়তক্ষেত্র।

(গ) ট্রাপিজিয়াম।

(ঘ) সামন্তরিক।

২। সামন্তরিকের দুটি সন্নিহিত কোণের একটি ৬৫ ডিগ্রি হলে অপরটি কত ডিগ্রি?

(ক) ৬০ ডিগ্রি।

(খ) ৬৫ ডিগ্রি।

(গ) ১৮০ ডিগ্রি।

(ঘ) ১১৫ ডিগ্রি।

নোট: সামন্তরিকের দুটি সন্নিহিত কোণের সমষ্টি ১৮০ ডিগ্রি।

৩। ABCD সামন্তরিকের কোণ A = 80 ডিগ্রি হলে D = 2

(ক) ৭০ ডিগ্রি।

(খ) ৮০ ডিগ্রি।

(গ) ১০০ ডিগ্রি।

(ঘ) ১১৫ ডিগ্রি।

৪। নিচের কোনটি সামন্তরিকের পরিসীমা নির্ণয়ের সূত্র?

(ক) সামন্তরিকের 2 (বাহুx বাহু)।

(খ) সামন্তরিকের (বাহু = বাহু)।

(গ) সামন্তরিকের ২ X বাহু।

(ঘ) সামন্তরিকের ২ (বাহু + বাহু)।

আরো দেখুনঃ

পরিসমাপ্তি: উপরোক্ত ইনফেটিতে আমরা সামান্তরিক কাকে বলে, সামন্তরিকের বৈশিষ্ট্য, সামন্তরিকের পরিসীমার সুত্র, সামান্তরিকের ক্ষেত্রফলের সূত্র সম্পর্কে জেনেছি।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

sex videos
pornvideos
xxx sex