vlxxviet mms desi xnxx

সামাজিক সম্পদ কাকে বলে?

0

সামাজিক সম্পদ কাকে বলে? | সামাজিক সম্পদের গুরুত্ব

আমি আপনাদের মাঝে নিয়ে এসেছি সামাজিক সম্পদ কাকে বলে। এই সামাজিক সম্পদ সম্পর্কে জানবো এবং সামাজিক সম্পদের অন্যান্য দিক সম্পর্কে জানব। চলুন তাহলে শুরু করা যাক আমাদের আজকের আলোচনার বিষয়টি সম্পর্কে।

সামাজিক সম্পদ কাকে বলে?

সামাজিক সম্পদ হচ্ছে- যে সকল সম্পদ সমাজের সকল মানুষের চাহিদা এবং প্রয়োজন মেটায়, এছাড়াও ঐ সকল সম্পদের মালিকানা সম্পূর্ণ সমাজের অধীনস্থ থাকে সেই সকল সম্পত্তিকে সামাজিক সম্পদ বলা হয়। যেমনঃ স্কুল,  হাসপাতাল, ক্লাব, খেলার মাঠ ইত্যাদি।

 আমরা যখন একটি এলাকায় বসবাস করি তখন সেই এলাকার সকল কর্মকাণ্ড একটি সামাজিক কর্মকান্ড হিসেবে অভিহিত করা হয়। আর এই সকল সামাজিক কর্মকান্ড বা সামাজিক সম্পদ ব্যবহার করার মধ্যে আমরা বিদ্যালয়, পাঠাগার, হাসপাতাল, খেলামাঠ ইত্যাদি ব্যবহার করে থাকি।

একটি জাতি শিক্ষিত হওয়ার পেছনে অবশ্যই সে জাতিকে পড়াশোনা করতে হবে। আর এই প্রশ্ন করার জন্য অবশ্যই আমাদের বিদ্যালয়, কলেজ, ভার্সিটির প্রয়োজন হয়। এই সকল প্রতিষ্ঠানে কোনো পুনা কোন ব্যক্তির সম্পত্তি। কিন্তু সেই ব্যক্তি দেশ এবং সমাজের উন্নয়নের জন্য, তা সর্বাঙ্গে ব্যবহার করার জন্য এবং দেশ ও জাতিকে শিক্ষিত করার লক্ষ্যে সমাজের অধীনস্থ করে দিয়েছে। সুতরাং এগুলো আমাদের সামাজিক সম্পদ।

আরো দেখুনঃ জাতীয় সম্পদ কাকে বলে?

সামাজিক সম্পদের গুরুত্ব

আমাদের মানব জাতিকে সুস্থভাবে বেঁচে থাকার জন্য অবশ্যই আমাদের একটি সুস্থ স্বাভাবিক সমাজ ব্যবস্থা থাকা প্রয়োজন। আর এই সকল সমাজ ব্যবস্থা তৈরি করার মূল লক্ষ্যে আছে সমাজের ব্যক্তি বর্গ গন।

সুতরাং সমাজের ব্যক্তিবর্গ রায় পারে তাদের নিজস্ব সম্পদ সামাজিক চাহিদা এবং প্রয়োজন মেটানোর জন্য সমাজের অধীনস্থ হস্তান্তর করতে। তবে আমাদের অবশ্যই সামাজিক সম্পদের ওপর গুরুত্ব  থাকতে হবে। আর এই সকল সামাজিক সম্পদের গুরুত্ব নিম্নে আলোচনা করা হল-

  • সামাজিক সম্পদের উপর সমাজের সকল শ্রেণীর মানুষের সমান অধিকার রয়েছে।
  • সামাজিক সম্পদ সমাজের মানুষদের প্রয়োজন এবং চাহিদা মেয়েটা।
  • সামাজিক সম্পদ সমাজের মানুষদের কল্যাণ বয়ে আনে। যেমনঃ বিদ্যালয় একটি শিশুকে বিদ্যা অর্জন করতে সাহায্য করে।
  • সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার দায়িত্ব ও সমাজের মানুষের।

সুতরাং সামাজিক সম্পদ ব্যবহার করার অধিকার সমাজের সকল ব্যক্তিবর্গ রয়েছে এবং এগুলো রক্ষা করার দায়িত্ব সমাজের সকল ব্যক্তিদের। 

সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার উপায়

সামাজিক সম্পদের গুরুত্ব যেমন রয়েছে ঠিক তেমনি সামাজিক সম্পদ রক্ষা করা আমাদের একান্ত কর্তব্য। যদি আমরা সঠিকভাবে সামাজিক সম্পদ রক্ষা করতে পারি তাহলে আমাদের সমাজ আরও সুন্দর এবং সুশীল হয়ে উঠবে। সুতরাং আমরা নিম্নে কিছু উপায় বলে দিচ্ছি যাতে করে  আমরা খুব সহজেই সামাজিক সম্পদ রক্ষা করতে।

  • সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার পূর্বে অবশ্যই আমাদের মানুষের মধ্যে সম্পর্ক সুন্দর  করে তুলতে হবে।
  • সামাজিক সম্পদ গুলো আমাদের পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করে রাখতে হবে। যেমন খেলার মাঠ এবং বিদ্যালয় এর প্রাঙ্গণ সবসময় আমাদের পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করে রাখতে হবে।
  •  পাঠাগারে যাতে সকল শ্রেণীর মানুষের জন্য বই রাখা হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।
  •  শিশুদের ছোটবেলা থেকেই সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার জন্য শিক্ষাদান করতে হবে।
  • সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার জন্য হোক পাঠদানে সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার সকল নিয়ম কানুন উল্লেখ রাখতে হবে।
  • সমাজের বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সামাজিক সম্পদ রক্ষা করার উদ্দেশ্যে যেকোনো বক্তব্য, আলোচনা,  মঞ্চনাটক এর মাধ্যমে সমাজে ব্যক্তিবর্গদের একটি মেসেজ প্রদান করার ব্যবস্থা রাখতে হবে। এতে করে সামাজিক সম্পদ রক্ষা করা প্রবণতা বৃদ্ধি পায়।

আরো দেখুনঃ

উপসংহার: আশা করি আপনারা সামাজিক সম্পদ কাকে বলে এবং সামাজিক সম্পদের অন্যান্য বিষয় সমূহ সম্পর্কে অবগত হতে পেরেছে। এসকল বিষয় সম্পর্কে বাহিরে আপনাদের যদি সামাজিক সম্পদ সম্পর্কে  আরও জানা থাকে তাহলে আমাদের নিজের কমেন্ট বক্সে এসে কমেন্ট করে জানাতে পারেন।  ধন্যবাদ।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

sex videos
pornvideos
xxx sex